স্কুল ছাত্রলীগ সভাপতি থেকে যুবলীগের কেন্দ্রীয় সদস্য নোয়াখালীর শাহজাদা

নোয়াখালী টিভি : বাংলাদেশ যুবলীগের কেন্দ্রীয় নির্বাহী সদস্য পদ পেয়েছেন নোয়াখালীর ছায়েফ উদ্দিন শাহাজাদা। এর আগে তিনি বাংলাদেশ ছাত্রলীগের কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য হিসেবে দায়িত্ব পালন করেছিলেন।নোয়াখালী জেলার সেনবাগ উপজেলার বীজবাগ গ্রামের মোঃ ফারুক-তাজনাহার বেগম দম্পতির ঘরে জন্ম গ্রহন করেন শাহজাদা। ২১ বছর আগে ১৯৯৯ সালে তৎকালীন জামায়াত-বিএনপি অধ্যুষিত এলাকায় অবস্থিত জয়নগর উচ্চ বিদ্যালয় শাখার ছাত্রলীগের সভাপতি হিসেবে রাজনীতিতে যাত্রা শুরু করেন।

এরপরে ২০০৩ সালে উপজেলা ছাত্রলীগের অর্থ সম্পাদক হিসেবে পদোন্নতি লাভ করেন। ছাত্রজীবনে রাজনৈতিক দক্ষতার কারনে এক বছরের মাথায় ২০০৪ সাল থেকে দীর্ঘদিন নোয়াখালী জেলা ছাত্রলীগের উপ-আইন বিষয়ক সম্পাদক হিসেবে দায়িত্বরত ছিলেন। এরপর বাংলাদেশ ছাত্রলীগের ১১-১৫ তে এইচ.এম. বদিউজ্জামান সোহাগ- সিদ্দিকী নাজমুল আলম এবং ১৫-১৮ তে মো: সাইফুর রহমান সোহাগ- জাকির হোসাইনদের কমিটিতে ছাত্রলীগের সদস্য হিসেবে দায়িত্বরত ছিলেন। সর্বশেষ গত শনিবার ( ১৪ নভেম্বর) ঘোষিত যুবলীগের ২০১ সদস্যের পূর্ণাঙ্গ কমিটির সদস্য হিসেবে দায়িত্ব পেয়েছেন। শিক্ষা জীবনে শাহজাদা জয়নগর উচ্চ বিদ্যালয় থেকে মাধ্যমিক ও নোয়াখালী সরকারি কলেজ থেকে উচ্চ মাধ্যমিক পরীক্ষায় ডিগ্রি লাভ করেন।

পরবর্তীতে তেজগাঁও কলেজ থেকে বিএ, ঢাকা কলেজ থেকে এমএসএস (রাষ্ট্রবিজ্ঞান)ডিগ্রী ও বঙ্গবন্ধু ল কলেজে এলএল.বি ডিগ্রি অর্জন করে ঢাকা বার এসোসিয়েশনে শিক্ষানবিশ আইনজীবী হিসেবে কর্মরত আছেন। রাজনীতির বাহিরে সামাজিক কার্যক্রমের অংশগ্রহণ হিসেবে তিনি মানবাধিকার সংস্থা হিউম্যান রাইটস রিভিউ সোসাইটির পরিচালক, বীজবাগ রাব্বানীয়া আলিম মাদ্রাসার গভর্নিং বডির সভাপতি, দি নোয়াখালী চেম্বার অব কমার্সের সদস্যসহ বিভিন্ন সংগঠনের গুরুত্বপূর্ণ পদে দায়িত্ব পালন করে আসছেন। ছাইফ উদ্দিন শাহাজাদা জানান, যুবলীগের কেন্দ্রীয় সদস্য হিসেবে দায়িত্ব পেয়ে তিনি নোয়াখালী জেলা যুবলীগকে সুসংগঠিত, শক্তিশালী করার জন্য কাজ করবেন। তিনি নোয়াখালীসহ দেশবাসীর দোয়া চেয়েছেন।

(তথ্যসুত্র : শোভনালয় জার্নাল)

পাঠকের মন্তব্য